আন্তর্জাতিক

পা কেটে উদ্ধার করা হলো ট্রাভেলেটরে আটকে পড়া নারীকে

ব্যাংককের একটি বিমানবন্দরে ট্রাভেলেটরে আটকে পড়ার পর এক নারীর পা কেটে তাকে উদ্ধার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সকালে ডন মুয়াং বিমানবন্দরে এই ঘটনার পর সন্ধ্যায় অস্ত্রোপচারের মাধ্যমে ৫৭ বছর বয়সী ওই নারীর পা কেটে ফেলা হয়। 

স্থানীয় গণমাধ্যম জানিয়েছে, ফ্লাইটে ওঠার আগে নিজের স্যুটকেসে হোঁচট খেয়ে ট্রাভেলেটরের ওপর পড়ে যান তিনি। এরপর তার একটি পা সেখানে আটকে যায়। 

ওই নারীর ছেলে কিট কিত্তিরত্তনা ফেসবুকে এক পোস্টে লিখেছেন, অস্ত্রোপচারের পর তাদের পরিবার ‘মর্মাহত’ এবং তার মানসিক স্বাস্থ্য নিয়ে চিন্তিত।

তিনি বলেন, ‘অপারেশনের আগে এবং পরে আমরা তার সাথে কিছুটা কথা বলেছিলাম…যদিও তিনি মুখের অভিব্যক্তি এবং কণ্ঠস্বরের মাধ্যমে নিজেকে শক্ত দেখানোর চেষ্টা করছিলেন, আমরা জানতাম যে হঠাৎ করে একটি পা হারিয়ে তিনি গভীরভাবে ভেঙে পড়েছেন’। 

‘আমাদের পরিবার খুব ভালো করেই জানে তার পা আর আগের মতো কাজ করবে না, আমরা তার আগের জীবন ফিরিয়ে আনতে পারব না’, বলেন তিনি। 

অনলাইনে প্রকাশিত ছবিতে দেখা গেছে, ওই নারী বসে থাকা অবস্থায় তার বাম পা ট্র্যাভেলটরের মধ্যে আটকে আছে। 

তার পাশের একটি গোলাপি স্যুটকেস দুটি চাকা ছিল না, এবং ট্রাভেলেটরের শেষ প্রান্তে থাকা কোম্ব প্লেটগুলোও ভাঙা। 

বিমানবন্দর ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ বলেছে, তারা এই ঘটনায় ‘গভীরভাবে দুঃখিত’ এবং ওই নারীর বাম পায়ের আংশিক ক্ষতির জন্য ক্ষতিপূরণ দেবে, সেইসাথে তার চিকিৎসা খরচ বহন করবে।

বিমানবন্দরের পরিচালক কারান্ত থানকুলজিরাপট বলেছেন, ঘটনার কারণ তদন্ত করা হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, বিমানবন্দরটি ২০২৫ সালের মধ্যে বেশ কয়েকটি পুরানো ট্রাভেলেটর প্রতিস্থাপন করার পরিকল্পনা করছিল, তবে সেটি এখন আরও এগিয়ে আসতে পারে।

স্থানীয় গণমাধ্যম জানিয়েছে, ওই ট্রাভেলেটরটি ১৯৯৬ সাল থেকে চালু রয়েছে। 

আরো দেখুন

সম্পর্কিত সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এছাড়াও পরীক্ষা করুন
Close
Back to top button